Tuesday, June 25, 2024

Jhargram Police Fire: ঝাড়গ্রামে গুলিতে আহত পুলিশ কর্মী! গ্রীন করিডোর বানিয়ে আ্যম্বুলেন্স ছুটল কলকাতা

- Advertisement -spot_imgspot_img

নিজস্ব সংবাদদাতা: বন্দুক পরিষ্কার করার সময় আচমকাই দুর্ঘটনা! বন্দুক থেকে গুলি বেরিয়ে ঢুকল পাশে থাকা সহকর্মীর পেটে। তৎক্ষণাৎই লুটিয়ে পড়েন ওই পুলিশ। রবিবার ঘটনাটি ঘটেছে ঝাড়গ্রাম জেলার বেলিয়াবেড়া থানায়। আহত পুলিশকর্মীর নাম বিশ্বনাথ দণ্ডপাট ( ৩২)। তাঁকে প্রথমেই নিয়ে যাওয়া হয় ঝাড়গ্রাম জেলা সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। কিন্তু কাজের কাজ না হওয়ায় তাঁকে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে কলকাতায়। জানা গেছে এরজন্য গ্রীন করিডোর তৈরি করা হয়েছে পুরো জাতীয় সড়ক জুড়েই। ৫ জেলার পুলিশ বাহিনী মোতায়েন হয়েছে এই করিডোর মসৃন রাখতে।

আরো খবর আপডেট মোবাইলে পেতে ক্লিক করুন এখানে

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, রবিবার সাধারণত থানার আগ্নেয়াস্ত্র সাফ করা হয়। সেই কাজই করছিলেন বেলিয়াবেড়া থানার এক পুলিশকর্মী। সেই সময় আচমকা গুলি লাগে বিশ্বনাথ দণ্ডপাট (৩২) নামে আর এক পুলিশকর্মীর। ওই গুলি তাঁর পেটে লাগে। গুলি চলার আওয়াজ শুনে দৌড়ে যান অন্যান্যরা। বিশ্বনাথকে গুরুতর জখম অবস্থায় উদ্ধার করে প্রথমে ঝাড়গ্রাম জেলা হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে তাঁর প্রাথমিক চিকিৎসা হয়। তবে শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাঁকে কলকাতায় স্থানান্তরিত করা হয়েছে।

পুলিশকর্মী জখম হওয়ার খবর পেয়ে ঝাড়গ্রাম জেলা হাসপাতালে যান ঝাড়গ্রামের পুলিশ সুপার বিশ্বজিৎ ঘোষ। ঘটনাটি তিনি জানান উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে। আইজি পশ্চিমঞ্চল, ডিআইজি মেদিনীপুর এবং কলকাতায় জানানো হয় ঘটনাটি। ঠিক হয় বিশেষ আ্যম্বুলেন্স করে কলকাতায় আনা হবে এবং তারজন্য গ্রীন করিডোর তৈরি করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। লক্ষ্য ২ঘন্টার মধ্যে তাঁকে কলকাতায় অস্ত্রপ্রচারের টেবিলে তুলে আনা। হাওড়া-মুম্বাই জাতীয় সড়কের মধ্যে থাকা ঝাড়গ্রাম, পশ্চিম ও পূর্ব মেদিনীপুর এবং হাওড়া পুলিশ ছুটে গিয়েছে জাতীয় সড়কে।

প্রায় ১৭৫ কিলোমিটার রাস্তার প্রতিটি মোড়ে মোতায়েন করা হয়েছে পুলিশ যাতে কোথাও কোনোও যানজট না থাকে।
জানা গেছে কোনা এক্সপ্রেস হাইওয়েতে বিশেষ ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। দ্বিতীয় হুগলি সেতুর ওপর থেকে সরাসরি কলকাতা পুলিশের বিশেষ বাহিনী পাইলট করে নিয়ে যাবে অ্যাম্বুল্যান্সটিকে।

অন্য বিকল্প ব্যবস্থা রাখা হয়েছে কোনও কারণে ওই রাস্তা অবরুদ্ধ হলে। বিশ্বনাথকে অ্যাম্বুল্যান্সে তুলে গ্রিন করিডর করে কলকাতার উদ্দেশে রওনা দিয়েছেন তাঁর সহকর্মীরা। বিষয়টি জানানো হয়েছে ওই পুলিশকর্মীর পরিবারকেও। প্রাথমিক ভাবে মনে করা হচ্ছে, রাইফেল পরিষ্কারের সময় অসাবধানতাতেই ঘটে গেছে এই দুর্ঘটনা।

- Advertisement -
Latest news
Related news