Saturday, May 25, 2024

Kharagpur Midnapore Forecast: শুক্রবার থেকে আবারও বৃষ্টি খড়গপুর মেদিনীপুর সহ দক্ষিণবঙ্গে! বুধবারও বৃষ্টি বহাল দুই শহরে, একাধিক জায়গা জলবন্দি

- Advertisement -spot_imgspot_img
আনন্দনগর, খড়গপুর! ছবি: অচিন্ত্য ত্রিপাঠী

নিজস্ব সংবাদদাতা: এ যেন মড়ার ওপর খাঁড়ার ঘা! সোমবার ও মঙ্গলবার বিপর্যয়য়ের বৃষ্টির পর বুধবার একটু আকাশ ফর্সা হওয়ার লক্ষণ দেখা দিলেও ফের নতুন করে বিপর্যয়ের পূর্বাভাস দিল আবহাওয়া দপ্তর। বঙ্গোপসাগরে ফের ঘনীভূত হতে চলেছে আরও একটি নিম্নচাপ আর তার জেরে ফের ভাসতে চলেছে খড়গপুর মেদিনীপুর শহর সহ দক্ষিণবঙ্গের বিস্তীর্ণ অঞ্চল। হওয়া অফিস সূত্রে জানানো হয়েছে বঙ্গোপসাগরে নতুন করে তৈরি নিম্নচাপের জেরে শনিবার বাড়বে বৃষ্টির প্রকোপ। আবহাওয়ার পূর্বাভাস, কলকাতা-সহ দক্ষিণবঙ্গের ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা জোরালো হবে শনিবার থেকে।

আরো খবর আপডেট মোবাইলে পেতে ক্লিক করুন এখানে

এদিকে রবিবার থেকে শুরু হওয়া বৃষ্টিতে কাহিল খড়গপুর ও মেদিনীপুর শহরের বেশকিছু অংশ। খড়গপুর শহরের আনন্দনগর ও মেদিনীপুর শহরের সুজাগঞ্জের নিচের অংশ পালবাড়ি ও ধর্মা রামকৃষ্ণনগরের একটি অংশ পুরোপুরি জলবন্দি হয়ে পড়েছে। কোথাও কোমর জল আবার কোথাও হাঁটু জল পেরিয়ে মানুষজনকে যাতায়াত করতে হচ্ছে।

আনন্দনগর, খড়গপুর। ছবি:অচিন্ত্য ত্রিপাঠী

খড়গপুর শহরের ২নম্বর ওয়ার্ড আনন্দনগরের বাসিন্দাদের অবস্থা খুবই খারাপ। গত প্রায় আড়াইমাস ধরে জল জমে রয়েছে বিভিন্ন এলাকায়। সম্প্রতি অবস্থার কিছুটা উন্নতি হয়েছিল কিন্তু নতুন করে বৃষ্টি শুরু হওয়ায় প্রায় পুরো আনন্দ নগরই জলবন্দি হয়ে পড়েছে। আনন্দ নগরে পৌরসভার স্বাস্থ্যকেন্দ্রটি অবধি পুরোপুরি জলবন্দি হয়ে পড়েছে।

একই অবস্থা খড়গপুর পৌরসভার ৯নম্বর ওয়ার্ড সংলগ্ন সারদাপল্লী এলাকার। এখানকার অধিবাসীরা জানিয়েছেন, রেশমি মেটালিকের ফেলা ছাই আর আবর্জনায় এলাকার জল বেরুনোর পথ বন্ধ হয়ে যাওয়ায় পুরো এলাকাই জলমগ্ন হয়ে পড়েছে। ঘরবাড়ি, উঠোন সমস্ত জায়গায় জল জমে গেছে।

ঘরের ভেতর জল, সারদাপল্লী, খড়গপুর

মানুষের ঘরের ভেতরে জল ঢুকে গেছে। ড্রয়িংরুম, রান্নাঘর, বেডরুম অবধি জল ঢুকে গেছে। নোংরা আবর্জনার সাথে পোকা মাকড় অবধি ঘরে ঢুকে যাচ্ছে। একই অবস্থা মেদিনীপুর শহরের সুজাগঞ্জের নিচের অংশ, পালবাড়ি সংলগ্ন এলাকা। পুরো এলাকাই জলের তলায়। প্রায় প্রতিটি ঘরেই জল ঢুকে গেছে। কোমর থেকে বুক অবধি জলের পরিমান। ধর্মা লাগোয়া রামকৃষ্ণ নগর ও সংলগ্ন এলাকাতেও জলের প্রকোপ।গণপতিনগর, মেদিনীপুর শহর। ছবি:সরল মাইতি

বুধবার দুপুরের পর থেকে আবহাওয়ার সামান্য উন্নতি হলেও আইএমডি বা ভারতীয় আবহাওয়া দপ্তর জানিয়েছে দুর্যোগ থেকে এখনই রেহাই মিলবে না। শুক্রবার থেকে ফের নতুন নিম্নচাপ বাসা বেঁধেছে বঙ্গোপসাগরে। তার জেরে ভারী বৃষ্টিপাত হবে। গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গ-সহ বিভিন্ন রাজ্যে বর্ষার দাপট চলবে। পশ্চিম বাংলার সাথেই দেশের বেশ কিছু অংশে প্রবল বৃষ্টিপাত হতে চলেছে। আইএমডি জানিয়েছে, শুক্রবার দেশের মধ্যে হরিয়ানা, রাজস্থান ও পশ্চিমবঙ্গের বিভিন্ন জায়গা ভেসে যেতে জলের তোড়ে। শুক্রবার থেকে বৃষ্টির প্রকোপ বাড়বে। আগামী ৩-৪ দিন ধরে রাজ্যজুড়ে ভারী বৃষ্টিপাত হবে। আবহাওয়ার পূর্বাভাস অনুযায়ী, ছত্তিশগড়, গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গ, ওড়িশায় ভারী থেকে অতিভারী বৃষ্টিপাত হবে। এছাড়া আগামী ৩-৪ দিন মহারাষ্ট্র, গুজরাত, রাজস্থান, মধ্যপ্রদেশে ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে। দুর্যোগের সম্ভাবনা জারি সপ্তাহভর। পরের সপ্তাহেও এই বৃষ্টিপাতের রেস জারি থাকবে।

 

- Advertisement -
Latest news
Related news