Sunday, April 14, 2024

SSC Scam: আদালতে জোড়া ধাক্কা পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের ! ফের হাজিরা দিতে হবে সিবিআইয়ের কাছে, আদালতে দিতে হবে সম্পত্তি সংক্রান্ত হলফনামা

- Advertisement -spot_imgspot_img

নিজস্ব সংবাদদাতা: দ্বিতীয়বারের জন্য CBI জেরা
এড়ানোর জন্য কলকাতা হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চে আবেদন করেছিলেন রাজ্যের প্রাক্তন শিক্ষা মন্ত্রী তথা বর্তমান শিল্পমন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় কিন্তু ডিভিশন বেঞ্চ তাঁকে সেই রক্ষাকবচ দিলনা। পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের আবেদন খতিয়ে দেখার পর বিচারপতি সুব্রত তালুকদার এবং বিচারপতি আনন্দ কুমার মুখোপাধ্যায়ের ডিভিশন বেঞ্চে শিল্পমন্ত্রীর আবেদন খারিজ করে দিয়েছেন। অর্থাৎ আগামী বুধবার ফের তাঁকে CBI দপ্তরে হাজিরা দিতে হচ্ছে।

আরো খবর আপডেট মোবাইলে পেতে ক্লিক করুন এখানে

শুধু তাই নয়, এসএসসি নিয়োগ দুর্নীতির মামলায় নতুন করে আরও অস্বস্তিতে পড়েছেন পার্থ চট্টোপাধ্যায়। রাজ্যের প্রাক্তন শিক্ষা মন্ত্রী তথা বর্তমান শিল্পমন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের সম্পত্তি সংক্রান্ত হলফনামা জমা দেওয়ার নির্দেশ দিল কলকাতা হাইকোর্ট। শুক্রবার কলকাতা হাইকোর্টের তরফে স্পষ্ট ভাবে জানানো হয়েছে, তাঁর সম্পত্তি সংক্রান্ত হলফনামা জমা দিতে হবে আদালতে। উল্লেখ্য এসএসসি নিয়োগ সংক্রান্ত মামলায় শুধু বেনিয়মই নয়, বিপুল অঙ্কের টাকার দুর্নীতির অভিযোগও উঠেছে।

মামলাকারীরা দাবি করেছেন প্রচুর টাকার লেনদেনের বিনিময়ে চাকরি পাইয়ে দেওয়া হয়েছে অযোগ্যদের। উল্টোদিকে বঞ্চিত হয়েছেন যোগ্য প্রার্থীরা। গত প্রায় আড়াইমাস ধরে এরকমই দাবি করে কলকাতার গান্ধী মূর্তির পাদদেশে ধর্ণায় বসে রয়েছেন চাকুরী প্রার্থীরা। শুক্রবারে পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের সম্পত্তির হলফনামা চাওয়া কি তবে আদালতের সেই সংক্রান্ত চিন্তাভাবনারই প্রতিফলন? উঠছে প্রশ্ন।

অন্যদিকে চলতি সপ্তাহের বুধবারের পর ফের দ্বিতীয় বার আগামী সপ্তাহে বুধবার পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে সিবিআইয়ের তলব প্রসঙ্গে জানা গিয়েছে প্রথম দিনে তাকে যে সমস্ত প্রশ্ন করা হয়েছিল, তিনি বেশ কিছু প্রশ্নের উত্তর এড়িয়ে যান। এসএসসির উপদেষ্টা কমিটি সম্পর্কে তাকে সেদিন প্রশ্ন করা হয়। কার নির্দেশে কমিটি গঠন করা হয়েছিল জানতে চাওয়া হয় এছাড়াও অযোগ্য প্রার্থীদের সুপারিশ পত্র কিভাবে দেওয়া হয় সে সম্পর্কে তিনি জানতেন কি না? জানলেও পদক্ষেপ কেন করা হয়নি? এও জিজ্ঞাসা করা হয়। নিয়ম মেনে নিয়োগ হয়েছে এ কথা জানানোর পরেও মনে নেই বলে কিছু প্রশ্নের উত্তর এড়িয়ে যান তৎকালীন শিক্ষামন্ত্রী। আর এই বিষয়টিই ভাবাচ্ছে সিবিআইকে। সেজন্যই ফের তলব করা হয়েছে পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে। আর তারই মধ্যে কলকাতা হাইকোর্টের পক্ষ থেকে পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের স্থাবর-অস্থাবর সম্পত্তি সংক্রান্ত হলফনামা চাওয়া নতুন মাত্রা যোগ করে দিল এই মামলায়।

- Advertisement -
Latest news
Related news