Monday, May 20, 2024

Fire: রাজ্য সড়কের ওপর ঝুলে থাকা বৈদ্যুতিক তারে লেগে পুড়ে গেল লরি! বিদ্যুৎ বিভাগের ওপর ক্ষোভ উগরে দিলেন সাধারন মানুষ

- Advertisement -spot_imgspot_img

নিজস্ব সংবাদদাতা: রাজ্য সড়কের মাথার ওপর দিয়ে উচ্চক্ষমতার বিদ্যুৎ পরিবাহী তার রাস্তার এপার থেকে ওপারে নিয়ে যাওয়া হয়েছে খোলা তার। সেই তারের নিচে নেই কোনও গার্ডার বা জালের অংশ যা কিনা তার ছিঁড়ে পড়া জনিত দুর্ঘটনা থেকে রক্ষা করতে পারে। সবচেয়ে বড় কথা অনেকটা নিচু হয়ে ঝুলে পড়া সেই তার বারংবার সরাতে বলেও কাজ হয়নি। দেখছি দেখব বলে কাটিয়ে দিয়েছে ১৮মাসে বছর হওয়া সরকারি বিদ্যুৎ দপ্তর আর তারই মাশুল দিতে হল একটি পণ্য পরিবহনকারি লরিকে।

আরো খবর আপডেট মোবাইলে পেতে ক্লিক করুন এখানে

সেই বিদ্যুৎ তারের সংস্পর্ষে এসে পুড়ে গেল লরির সমস্ত পণ্য, পাশাপাশি ক্ষতিগ্রস্ত হল লরিটি। রবিবার দুপুরে এমনই ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়ায় পূর্ব মেদিনীপুর জেলার নিকাশি বাজার এলাকায়। স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে এদিন থার্মোকল বোঝাই করে ওই লরিটি নিমতৌড়ি থেকে শ্রীরামপুর হয়ে ময়নার দিকে যাচ্ছিল। শ্রীরামপুর মেচেদা রাজ্য সড়কের মাঝে নিকাশি বাজারের ওপরেই ঘটে যায় এই মারাত্মক দুর্ঘটনাটি।

জনবহুল নিকাশি বাজারের রাস্তার ওপর দিয়েই এদিক থেকে ওদিকে নিয়ে যাওয়া হয়েছে ৪৪০ ভোল্টের খোলা তার। লরির উঁচু হয়ে থাকা বোঝাই থার্মোকলের সংস্পর্ষে এসে আগুন ধরে যায় থার্মোকলে। এবং মুহূর্তের মধ্যেই তা দাউ দাউ জ্বলতে জ্বলতে ছড়িয়ে পড়ে সারা লরিতে। কোনও রকমে লরি ছেড়ে বেরিয়ে আসেন চালক ও সহকারী। মুহূর্তের মধ্যে লরির চাকাগুলি আগুনের আয়ত্তে এসে পুড়তে শুরু করে।

এদিকে রাস্তার ওপর লরি জ্বলতে থাকায় আতঙ্ক ছড়ায় স্থানীয় দোকানদার, বাসিন্দা, পথচারীদের মধ্যে। তাঁরাই খবর দেন দমকলকে, ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছায় দমকলের একটি ইঞ্জিন। প্রায় ঘন্টা খানেকের প্রচেষ্টায় দমকল কর্মীরা আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। ঘটনায় বিদ্যুৎ দপ্তরের ওপর রীতিমতো ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন এলাকার সাধারণ মানুষ। তাঁরা দাবি করেছেন বিদ্যুৎ দপ্তরের গাফিলতির ফলেই এই ঘটনা। তাঁরা আরও জানান, এরকমই কোনও দুর্ঘটনা ঘটতে পারে এমন আশঙ্কা তাঁদের ছিলই। কারন ওই নগ্ন বিদ্যুৎ পরিবাহী তার যে ভাবে নিয়ে যাওয়া হয়েছে তা খুবই বিপদজ্জনক।

স্থানীয় বাজার কমিটির সম্পাদক প্রদীপ দে জানিয়েছেন, রাজ্য সড়কের ওপর ওই তার এভাবে ঝুলন্ত অবস্থায় না থাকলে এই দুর্ঘটনা ঘটতো না। বৈদ্যুতিক দপ্তরে বহুবার ঐ তার সরিয়ে নেওয়ার জন্য যোগাযোগ করা হলে কোন সদুত্তর মেলেনি। যার ফলেই এই দুর্ঘটনা। ভগবানকে ধন্যবাদ আরও বড় কিছু ঘটেনি।

দমকলের অফিসার শচীনন্দন মাইতি জানিয়েছেন ট্রাকটির সামনের দুটি টায়ার ও পেছনের একপাশে টায়ার সম্পূর্ণ ভস্মীভূত হয়েছে। আগুন নিয়ন্ত্রণে আনা হয়েছে। তিনিও বলেন বিদ্যুৎ পরিবাহী তারের সংস্পর্ষে এসেই এমন ঘটনা ঘটেছে।

- Advertisement -
Latest news
Related news