Monday, April 15, 2024

Midnapore Accident: রাজ্য সড়কে বাসের সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ প্রাইভেট কারের! মৃত্যুর মুখ থেকে বাঁচলেন মেদিনীপুর শহরের মা ও ছেলে

- Advertisement -spot_imgspot_img

নিজস্ব সংবাদদাতা: সাক্ষাৎ মৃত্যুর মুখ থেকে বেঁচে আসলেন মা ও ছেলে একটি ভয়াবহ দুর্ঘটনার পর প্রায় ঘন্টা দেড়েক তাঁদের আটকে থাকতে হয় দুর্ঘটনাগ্রস্ত প্রাইভেট কারের ভেতরে পরে সেই গাড়িটি সামনের অংশ কেটে তাঁদেরকে বের করে আনতে হয়। বুধবার সকাল সাড়ে আটটা নাগাদ ঘটনাটি ঘটেছে মেদিনীপুর শহরের প্রান্তিকে অবস্থিত ধর্মা থেকে ৯ কিলোমিটার দূরে মেদিনীপুর কেশপুর রাজ্য সড়কের তেঁতুলতলা নামক স্থানে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে যায় কোতোয়ালি থানার পুলিশ। দুটি গাড়িকেই বাজেয়াপ্ত করেছে তারা।

আরো খবর আপডেট মোবাইলে পেতে ক্লিক করুন এখানে

জানা গেছে মেদিনীপুর শহরের রাঙামাটি এলাকার বাসিন্দা দীপেন সেন তাঁর মা জয়া সেনকে নিয়ে ক্ষীরপাইয়ের আত্মীয় বাড়ির উদ্দেশ্যে রওনা দিয়েছিলেন। নিজেদের প্রাইভেট কারেই যাচ্ছিলেন তাঁরা। গাড়ি চালাচ্ছিলেন দীপেন নিজেই। তেঁতুলতলার কাছে অন্যমনস্কতা বা অন্য কোনও কারণে দীপেনের প্রাইভেট কারটি বাঁ দিকে ছেড়ে হঠাৎই রাস্তার মাঝ বরাবর উঠে আসে।  ঠিক ওই সময় উল্টো দিক থেকে আসছিল ঘাটাল-মেদিনীপুর গন্তব্যের রাধানাথ নামক একটি বাস। বাসটি যথেষ্ট দ্রুত গতিতে থাকায় বাসের চালক ব্রেক না কষেই বাসটিকে ডানদিক বরাবর কাটিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করে। কিন্তু শেষরক্ষা হয়নি।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, ওই প্রাইভেট কারের মুখে ধাক্কা মেরে সেটি সহ বাসটি নেমে যায় প্রায় কুড়ি ফুট দূরত্বের ধানের জমিতে। সৌভাগ্যের বিষয় বাসটি উল্টে যায়নি। তা’হলে অনেক যাত্রী আহত বা নিহত হতে পারতেন। স্থানীয়রা ছুটে এসে বাস থেকে যাত্রীদের নামতে সাহায্য করেন। ওদিকে বাসের ধাক্কায় প্রাইভেট কারের সমস্ত দরজা লক হয়ে যায়। গাড়ির স্টিয়ারিং ও ইঞ্জিনের অংশ চেপে দেয় সামনে বসে থাকা মা ও ছেলেকে। স্থানীয়রা দরজা খোলার চেষ্টা করেও ব্যর্থ হন। জেসিপির সাহায্যে প্রাইভেট কারটি রাস্তার ওপর তুলে এনে সামনের অংশ কেটে উদ্ধার করা হয় মা ও ছেলেকে। ওই দু’জন সহ এই ঘটনায় মোট চারজন আহত হন। মা ও ছেলেকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

- Advertisement -
Latest news
Related news