Monday, April 15, 2024

Kharagpur Crime: খড়গপুরে ডাকাতির উদ্দেশ্যে জড়ো হওয়া ৩ দুষ্কৃতি গ্রেফতার! পলাতক আরও ১ডাকাতের খোঁজে তল্লাশি

Kharagpur Town Police arrested 3 miscreants who had gathered for the purpose of robbery. The miscreants were arrested from BNR Maidan near Golbazar Bara Mosque at midnight on Friday, police said. According to Kharagpur Town Thana sources, the houses of each of the detainees are within the Town Thana area. The arrested are 23-year-old Deepayan Mikhail alias Gom, a resident of Ward 29, Taljhuli, 22-year-old Ashis Mahato and 19-year-old D Jagmohan alias Jaggu, a resident of Ramnagar area, Ward 32. Another miscreant involved in the incident was able to escape, police said. Police are searching for him. Police said they also recovered an iron rod, a knife and a machete from the suspects, in addition to a local pistol. The pistol was loaded with a fresh cartridge, police sources said.

- Advertisement -spot_imgspot_img

নিজস্ব সংবাদদাতা: ডাকাতির উদ্দেশ্যে জড়ো হওয়া ৩ দুস্কৃতিকে পাকড়াও করল খড়গপুর টাউন থানার পুলিশ। শুক্রবার মধ্যরাতে গোলবাজার বড় মসজিদ পার্শ্ববর্তী বিএনআর ময়দান থেকে এই দুস্কৃতিদের গ্রেফতার করা হয়েছে বলে পুলিশ জানিয়েছে। খড়গপুর টাউন থানা সূত্রে জানা গেছে ধৃতদের প্রত্যেকেরই বাড়ি টাউন থানা এলাকার মধ্যেই। ধৃত ২৩ বছরের দীপায়ন মিখাইল ওরফে গোমের ২৯নম্বর ওয়ার্ড তলঝুলির বাসিন্দা, ২২ বছর বয়সী আশিস মাহাতো ও ১৯ বছরের ডি জগমোহন ওরফে জগ্গু শহরের ৩২ নম্বর ওয়ার্ডের রামনগর এলাকার বাসিন্দা। ঘটনায় যুক্ত আরও এক দুষ্কৃতি পালাতে সক্ষম হয়েছে বলে পুলিশ জানিয়েছে। তার খোঁজে তল্লাশি চালাচ্ছে পুলিশ।

আরো খবর আপডেট মোবাইলে পেতে ক্লিক করুন এখানে

পুলিশ জানিয়েছে , ধৃতদের কাছ থেকে একটি দেশি পিস্তল ছাড়াও লোহার রড, চাকু ও ভোজলি উদ্ধার করেছে। পিস্তলটিতে একটি তাজা কার্তুজ ভরা ছিল বলে পুলিশ সূত্রে জানা গেছে। শুক্রবার রাতে শহরের ওই অংশের টহলদারির দায়িত্বে ছিলেন টাউন থানার আ্যসিসটেন্ট সাব ইন্সপেক্টর সাধন কুমার পাত্র। তাঁর সঙ্গে ছিলেন দুই কনস্টেবল পঙ্কজকুমার দাস ও রবীন্দ্রনাথ মুর্মু। রাত পৌনে ১টা নাগাদ বিএনআর গ্রাউন্ডের একটি অন্ধকারাচ্ছন্ন স্থানে কয়েকটি মৃদুকন্ঠের আলাপচারিতা শুনতে পেয়ে গাড়ি দুরে রেখে সেই স্থানে গিয়ে কয়েকজনকে দেখতে পান ওই পুলিশ কর্মীরা। বিষয়টি সন্দেহজনক মনে হওয়ায় থানায় ফোন করে অতিরিক্ত বাহিনী পাঠানোর কথা বলেন তাঁরা। এরপরই অতিরিক্ত বাহিনী পৌঁছে যায়। ধিরে ধিরে পুলিশ জায়গাটিকে কর্ডন করে ফেলে। পুলিশের অস্তিত্ব টের পাওয়ার পরই দুস্কৃতিরা পালানোর চেষ্টা করে। একজন সফল হলেও ৩ জন ধরা পড়ে যায়।

জিজ্ঞাসাবাদে অসংলগ্ন কথাবার্তা বলার পরই পুলিশ তাদেরকে তল্লাশি করতেই একে একে আগ্নেয়াস্ত্র ও ধারালো অস্ত্র উদ্ধার হয়। পুলিশ জানিয়েছে দুস্কৃতিদের সঙ্গে থাকা লোহার রডটি ডাকাতির উদ্দেশ্যে তালা ভাঙার জন্য জোগাড় করেছিল দুস্কৃতিরা। ধৃত ৩ জনকে শনিবার খড়গপুর চিফ জুডিশিয়াল আদালতে পেশ করা হয়েছে। পুলিশ তাদেরকে নিজস্ব হেফাজতে নিয়ে আরও জিজ্ঞাসাবাদ করতে চায় বলেই জানিয়েছে। খড়গপুরের পুলিশের এক আধিকারিক জানিয়েছেন পলাতক দুস্কৃতি শহরের ৪ নম্বর ওয়ার্ডের পাঁচবেড়িয়া এলাকার বাসিন্দা বলেই জানতে পারা গেছে। ওর খোঁজে সম্ভাব্য জায়গায় তল্লাশি চালানো হচ্ছে।

- Advertisement -
Latest news
Related news