Friday, April 19, 2024

আয়ুর্বেদ চিকিৎসকদের দেওয়া সার্টিফিকেটকেও মান্যতা দিতে হবে! রাজ্যকে নির্দেশ আয়ুর্বেদ ডিরেক্টরের

- Advertisement -spot_imgspot_img

নিজস্ব সংবাদদাতা: রাজ্যের আয়ুর্বেদ চিকিৎসক যাঁরা কিনা ব্যাচেলর অফ আয়ুর্বেদিক মেডিসিন এন্ড সার্জারি বা B.A.M.S ডিগ্রী অর্জন করেছেন তাঁরাও MBBS ডিগ্রী ধারী চিকিৎসকদের মতই ফিট সার্টিফিকেট দিতে পারবেন। আরও স্পষ্ট বলতে গেলে বলতে হয়, সরকারি কিংবা বেসরকারি, সেনাবিভাগ ইত্যাদি ক্ষেত্রে কোনও ব্যক্তির যদি স্বাস্থ্য সংক্রান্ত কিংবা সেই ব্যক্তি এই মুহূর্তে কর্মক্ষম কিনা জানার প্রয়োজনে কোনও ডাক্তারি সার্টিফিকেটের প্রয়োজন হয় তবে তা যেমন MBBS ডিগ্রী ধারী চিকিৎসকরা দিতে পারেন তেমনই দিতে পারবেন BAMS ডিগ্রী ধারী চিকিৎসকরাও। গত ২১শে এপ্রিল এমনি একটি নির্দেশিকা পাঠিয়েছেন পশ্চিমবঙ্গ সরকারের ডিরেক্টর অব আয়ুর্বেদ তথা আয়ুশ বিষয়ক বিশেষ সচিব শ্যামল চন্দ্র মন্ডল। এই নির্দেশিকা পাঠানো হয়েছে ডিরেক্টর অব হেলথ সার্ভিস, ডিরেক্টর অব মেডিক্যাল এডুকেশন ছাড়াও সমস্ত জেলার মুখ্য স্বাস্থ্য আধিকারিক সহ বিভিন্ন বিভাগীয় আধিকারিকদের কাছে।

আরো খবর আপডেট মোবাইলে পেতে ক্লিক করুন এখানে

প্রশ্ন হচ্ছে হঠাৎ এ ধরনের নির্দেশিকা পাঠানোর প্রয়োজন হল কেন? ন্যাশনাল আয়ুর্বেদ স্টুডেন্ট এন্ড ইয়ুথ এ্যশোয়িশেন (NASYA) সংগঠনের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ডঃ সুমিত সুর জানান, ” গতবছর পশ্চিমবঙ্গ সরকারের বেশ কিছু বিজ্ঞাপন, নির্দেশিকায় আমরা BAMS চিকিৎসকরা ধন্দে পড়ে যাই। আমাদের মনে হতে থাকে কোথাও যেন রাজ্য সরকার MBBS চিকিৎসকদের সাথে আমাদের একটি ফারাক রেখা টানতে মরিয়া হয়ে উঠেছে। সেই হিসাবে আয়ুর্বেদ চিকিৎসকদের অন্য একটি সংগঠন সরকারের কাছে চিঠি দিয়ে জানতে চান যে আয়ুর্বেদিক চিকিৎসকরা যাঁরা BAMS ডিগ্রী অর্জন করেছেন তাঁরা ‘ফিট’ সার্টিফিকেট দিতে পারবেন কিনা। আমাদের আশঙ্কা সত্যি প্রমান করে গত ২৭শে ডিসেম্বর ২০২১, পশ্চিমবঙ্গ সরকারের ডেপুটি ডাইরেক্টর অব হেলথ সার্ভিস (মাঠ ব্রাঞ্চ) জানায় একমাত্র MBBS চিকিৎসকরাই ওই সার্টিফিকেট দেওয়ার অধিকারী। এই অদ্ভুত নির্দেশিকায় আমরা অবাক হয়ে যাই। যেখানে MBBS এর মতই BAMS সাড়ে ৫ বছরের কোর্স। যেখানে আমরা কেন্দ্র এবং রাজ্যে আইন মোতাবেক মেডিক্যাল প্র্যাক্টিসনার লাইসেন্স অধিকারী সেখানে এই অদ্ভুত বৈষম্য কেন? এরপরই আমরা ন্যাশনাল কমিশন ফর ইন্ডিয়ান সিসস্টেম অব মেডিসিন (NCISM) এবং কেন্দ্রীয় আয়ুশ মন্ত্রকের দ্বারস্থ হই।”

এরপর এ বছর জানুয়ারি মাসের গোড়ায় NCISM এর বোর্ড অব এথিক্স এন্ড রেজিস্ট্রেশনের ডিরেক্টর পশ্চিমবঙ্গ সহ দেশের সমস্ত স্বাস্থ্যদপ্তরকে জানিয়ে দেয় যে ২৭শে ডিসেম্বর ২০২১ সালে পশ্চিমবঙ্গ সরকারের ডেপুটি ডাইরেক্টর অব হেলথ সার্ভিসের ওই নির্দেশিকা স্বাস্থ্য ও চিকিৎসা সংক্রান্ত রাজ্যের এবং কেন্দ্রের আইনের পরিপন্থী। ওই নির্দেশিকা অবিলম্বে বাতিল করতে হবে। অর্থাৎ MBBS চিকিৎসকদের মতই BAMS চিকিৎসকরাও স্বাস্থ্য ও শারীরিক সক্ষমতা সম্পর্কিত প্রত্যয়নপত্র বা ফিট সার্টিফিকেট দিতে পারবেন। ডঃ সুর জানিয়েছেন রাজ্যের ডিরেক্টর অব আয়ুর্বেদ NCISM প্রদত্ত সেই নির্দেশিকাকেই মান্য করার জন্য রাজ্যের বিভিন্ন দপ্তরগুলিকে ২১শে এপ্রিল এই নির্দেশিকা পাঠিয়েছেন। এরফলে আ্যলোপ্যাথ চিকিৎসকদের সঙ্গে আয়ুর্বেদিক চিকিৎসকদের যে প্রভেদ টানার অপচেষ্টা চলছে তা যে কতটা অবৈজ্ঞানিক ও অসংসদীয় তা আবারও প্রমাণিত হল।

- Advertisement -
Latest news
Related news