Sunday, July 21, 2024

Anish Murder Case: আনিস কান্ডেও CBI চাই! জনবিক্ষোভে ফুটছে আমতা, ফিরতে হল ফিরহাদ হাকিমকে

- Advertisement -spot_imgspot_img

নিজস্ব সংবাদদাতা: আনিস হত্যাকাণ্ডের পর কেটে গিয়েছে ৪১ দিন। শুক্রবার ৪২ দিনের মাথায় আমতার সর্দার পাড়ায় আনিসের বাড়ি যেতে চেয়েছিলেন রাজ্যের মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম কিন্তু ব্যাপক জন বিক্ষোভের মুখে ফিরতে হল তাঁকে।

আরো খবর আপডেট মোবাইলে পেতে ক্লিক করুন এখানে
গাড়ি ঘুরিয়ে ফিরতে হচ্ছে ফিরহাদ হাকিমকে

হাজার হাজার জনতার মুখে শুনতে হল ‘গো ব্যাক স্লোগান’, আনিসের বাড়ির সামনে থেকে ফিরতে হল মন্ত্রীকে। নজিরবিহীন সেই বিক্ষোভের পরই ফিরহাদ হাকিমের দেহরক্ষীরা তাঁকে ফিরিয়ে নিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেন। বিক্ষুব্ধ গ্রামবাসীরা জানিয়ে দেন আনিস হত্যায় CBI তদন্ত চাই।

মনে করা হচ্ছে শুক্রবার দুটি ঘটনা হৃৎকম্প ধরিয়েছে শাসকদলের। এদিনই রামপুরহাটের বগটুই গনহত্যাকান্ডে রাজ্য সরকার গঠিত SIT তদন্ত বাতিল করে CBI তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন কলকাতা হাইকোর্ট। আনিস হত্যাকাণ্ডেও SIT গঠন করে তদন্ত চালাচ্ছে রাজ্য সরকার। ঘটনাক্রমে রাজ্যের এই দুই SIT দলটির কর্তা করা হয়েছে একজনকেই জ্ঞানবন্ত সিং কে।

এলাকা ছাড়তে বাধ্য হচ্ছে পুলিশও

যেখানে বগটুই গণহত্যাকান্ডে তাঁর নেতৃত্বে SIT ওপর অনাস্থা প্রকাশ করেছে আদালত সেখানে আনিস হত্যাকাণ্ডেও তাঁর ওপর আদালত ভরসা রাখতে পারবে কিনা সন্দেহ। তাছাড়া আনিস হত্যাকান্ডে SIT র তদন্তে সন্তুষ্ট নয় আনিসের পরিবার। প্রথম থেকেই তাঁরা CBI দাবি করছেন। সেই মামলাটিও হাইকোর্টের বিচারাধীন।

অন্যদিকে শুক্রবারই মৃত ছাত্রনেতা আনিস খানের বাড়িতে গিয়েছেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর চৌধুরী। শুক্রবার সকালে প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীর চৌধুরীর মিছিলে হাঁটেন আনিস খানের বাবা সালেম খান। সেই মিছিল থেকে দাবি ওঠে CBI তদন্তেরও। আনিসের বাবা সালেম খানের সঙ্গে তাঁর কথাও হয়। এরপর দুপুরে আইএসএফ নেতা আব্বাস সিদ্দিকী গিয়ে আনিস খানের বাবার সঙ্গে কথা বলেন। আনিসের আত্মার শান্তি কামনা ধর্মীয় অনুষ্ঠানের আয়োজন হয়েছিল এদিন। যে অনুষ্ঠানে যোগ দিতে শুধু আনিসের গ্রামের লোকই নন, আশপাশের বেশ কিছু গ্রাম থেকে বেশ কয়েক হাজার মানুষ হাজির হয়েছিলেন। বেশ কয়েক ঘণ্টা ধরে চলে যে অনুষ্ঠান।

সেই খবর পাওয়ার পরই তড়িঘড়ি করে ফিরহাদ হাকিম এদিন বিকেলেই পৌঁছে যান আনিস খানের গ্রামে। ফিরহাদের সঙ্গে ছিলেন পঞ্চায়েত মন্ত্রী পুলক রায়। তাঁরা বিক্ষোভের মুখে পড়েন। আইএসএফ নেতা আব্বাস সিদ্দিকি ও পিরজাদারা আনিসের আত্মার শান্তির জন্য এক ধর্মীয় অনুষ্ঠানে লিপ্ত ছিলেন। সেইসময় ফিরহাদ উপস্থিত হন, উপস্থিত জনতা তাঁকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখান। গো-ব্যাক স্লোগান ওঠে। প্রশ্ন ওঠে কেন এসেছিন তিনি। ৪২ দিন কেটে গিয়েছে, কোনও অপরাধী ধরা পড়েনি। তাছাড়া আমরা তো ওনাদের ডাকিনি। এলাকায় প্রচুর পরিমাণে পুলিশ হাজির থাকলেও উদ্ভূত পরিস্থিতি আয়ত্ত্বে আনতে ব্যর্থ হন তাঁরা। স্থানীয়রা মন্ত্রীকে দেখে ক্ষোভপ্রকাশের পাশাপাশি বেশ কিছু অপ্রিয় প্রশ্নও ছুড়ে দেন। আনিস মৃত্যুর পর ৪২ দিন কেটে গেলেও এখনও তদন্ত প্রক্তিয়া শেষ না হওয়া প্রসঙ্গ নিয়েও প্রশ্ন তোলেন গ্রামবাসীরা। এই প্রসঙ্গে ফিরহাদ হাকিম বলেন, ‘পরিকল্পনা করে বহিরাগত বিক্ষোভ, আনিসের বাবার সঙ্গে দেখা করার কথা ছিল কিন্তু তাঁর শরীর ভাল নেই, তাই ফিরে এসেছি।স্থানীয়দের দাবি, আনিসের বাবার মতোই আমরাও সিবিআই তদন্তই চাইছি’।

- Advertisement -
Latest news
Related news